এক চরম বাস্তবতায় তুমি আর আমি এক ছাদের নিচে থাকতে পারছি না, শাকিব

ঢালিউড সুপার স্টার শাকিব খান ও জনপ্রিয় নায়িকা অ’পু বিশ্বা’সের ছে’লে আব্রাম খান জয়। ছোট্ট জয় জন্মের পর থেকে বাবা-মা সূত্রে পেয়েছে তারকাখ্যাতি। জন্মের পর থেকে তার জন্ম’দিনটি বেশ জমকালো’ভাবে আয়োজন হয়ে আসছে।তবে এবার ঘটা করে জয়ের জন্ম’দিন পালন হচ্ছে না। ছে’লের জন্ম’দিনকে ঘিরে শাকিব খান নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুকে পেইজে এক আবেগী শুভেচ্ছাবার্তা পাঠিয়েছেন। যেটি পাঠক হৃদয়ে নাড়া দিয়েছে ভীষণভাবে।জয়কে উদ্দেশ্য করে শাকিব লেখেন,

এক চরম বাস্তবতার কারণে হয়ত তুমি আমি সবসময় এক ছাদের নিচে থাকতে পারছি না, কিন্তু আম’রা ঠিকই আছি ভালোবাসা আর সুরক্ষার ছায়ায় ও মায়ায়। শাকিব আরও লেখেন, আমা’র জীবনের সবচেয়ে বড় অর্জন তুমি।ফেসবুক পোস্টে ঢালিউডের এ নায়ক লেখেন, আমা’র এই ছোট্ট জীবনে ভালোবাসা, সম্মান, সম্মাননা সবকিছু পেয়েছি। আলহাম’দুলিল্লাহ এখন পর্যন্ত আমা’র জীবনের সবচেয়ে বড় অর্জন তুমি। আমা’র ‘জয়’ বাবা। ইনশাআল্লাহ একদিন তুমি আমা’র

চেয়েও সফল এবং অনেক ভালো একজন মানুষ হবে। ছাড়িয়ে যাবে বাবার স্বপ্নের সব সীমানাকেও।জয়ের উদ্দেশে তিনি আরও লেখেন, তোমা’র চলার পথে বাবা আমৃ’ত্যু ছায়া হয়ে পাশে থাকবে। যেমনটা এখনও আছে। এক চরম বাস্তবতার কারণে হয়তো তুমি আমি সবসময় এক ছাদের নিচে থাকতে পারছি না, কিন্তু আম’রা ঠিকই আছি ভালোবাসা আর সুরক্ষার ছায়ায় ও মায়ায়। তোমাকে আমি সবসময় এবং আজীবন ভালোবাসি বাবা।জানা গেছে জয়ের মা অ’পু বিশ্বা’স কিছুদিন আগে মা হারিয়েছেন।

এ কারণেই ছে’লের জন্ম’দিনে কোনো আয়োজন রাখেননি অ’পু। সোশ্যাল একাধিক পোস্টে মা হা’রানোর বেদনা ও ছে’লের জন্ম’দিনের আনন্দ শেয়ার করেন তিনি। পোস্ট করেন নানি-নাতির ভিডিও।অ’পু লেখেন, বাবা এবার তোমা’র জন্ম’দিনের কোন আয়োজনই আমি করতে পারলাম না। তোমা’র দিদা তোমা’র পাশে নেই,

আম’রা আর কখনো তোমা’র দিদার দেখা পাবো না। আমি তোমা’র মা হিসেবে তোমাকে অনেক অনেক আশীর্বাদ করি, তোমা’র দিদার আশা পূরণ করে যেন আমি তোমাকে মানুষের মতো মানুষ করতে পারি।শাকিব ও অ’পু ২০০৮ সালের ১৮ এপ্রিল গো’পনে বিয়ে করেন। ২০১৬ সালের ২৭ সেপ্টেম্বর কলকাতায় আব্রাহাম খান জয়ের জন্ম। অ’পু-শাকিবের বিবাহ বিচ্ছেদের পর মায়ের কাছেই থাকছে জয়

Check Also

অবশেষে মাজহারের সঙ্গে সম্পর্কের গুঞ্জন নিয়ে যা বললেন শাওন

কোলন ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে প্রায় ১০ মাস চিকিৎসাধীন থাকার পর ২০১২ সালের ১৯শে জুলাই নিউইয়র্কের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *